Agaminews
August
পাশের জেলাগুলোয় কঠোর লকডাউন

চতুর্দিক থেকে বিচ্ছিন্ন হচ্ছে রাজধানী


আগামী নিউজ | রাজধানী ডেস্ক প্রকাশিত: জুন ২২, ২০২১, ১১:৪১ এএম
চতুর্দিক থেকে বিচ্ছিন্ন হচ্ছে রাজধানী

ঢাকাঃ রাজধানীতে করোনা সংক্রমণ নিয়ন্ত্রণে রাখতে আশপাশের সাত জেলায় আজ সকাল ৬টা থেকে আরোপ করা হয়েছে ‘কঠোর’ বিধিনিষেধ।

সীমান্তবর্তী জেলাগুলোতে সংক্রমণ বেড়ে যাওয়ায় এবং ডেল্টা ভ্যারিয়েন্ট ছড়িয়ে পড়ায় ঢাকাকে বিচ্ছিন্ন করার এ সিদ্ধান্ত নেওয়া হয়েছে। আগামী ৩০ জুন পর্যন্ত এ ৯ দিন ‘কঠোর’ বিধিনিষেধ চলমান থাকবে বলে প্রজ্ঞাপন জারি করেছে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ। রাজধানীকে ঢাকা বিচ্ছিন্ন করার ঘোষণায় আজ থেকে ঢাকার সঙ্গে দূর পাল্লার বাস চলাচল বন্ধ থাকবে। সাত জেলায় লঞ্চ চলাচল বন্ধ ঘোষনা করেছে বিআইডব্লিউটিএ। জরুরি সেবা ছাড়া সাত জেলায় সব অফিস বন্ধ থাকবে।

রাজধানীর বাইরে করোনা সংক্রমণ ঠেকাতে বেশ কিছু এলাকায় ইতিমধ্যে চলছে কঠোর বিধিনিষেধ। এর মধ্যে চাঁপাইনবাবগঞ্জ জেলা, সাতক্ষীরা জেলা, রাজশাহী মহানগর, নওগাঁ পৌরসভা, নিয়ামতপুর উপজেলা, নাটোর সদর ও সিংড়া পৌরসভা, রাজশাহী সিটি করপোরেশন, নোয়াখালী পৌরসভা ও সদর উপজেলার ছয়টি ইউনিয়ন, নড়াইল সদর পৌরসভার তিনটি এলাকা, জয়পুরহাট সদর ও পাঁচবিবি পৌরসভা এবং যশোর সদর ও অভয়নগর পৌরসভাসহ কিছু নির্দিষ্ট এলাকায় বিধিনিষেধ চলমান রয়েছে। অনেক এলাকায় কয়েক দফা বাড়ানো হয়েছে বিধিনিষেধ। তবু লাগামহীন করোনা পরিস্থিতি।

সারা দেশে ২৪ ঘণ্টায় ৪ হাজার ৬৩৬ জন নতুন আক্রান্ত শনাক্ত হয়েছেন। মারা গেছেন ৭৮ জন।
গতকাল মন্ত্রিপরিষদ সচিব খন্দকার আনোয়ারুল ইসলাম জরুরি ব্রিফিংয়ে সাংবাদিকদের বলেছেন, ‘আগামীকাল (আজ মঙ্গলবার) থেকে ৩০ জুন পর্যন্ত মানিকগঞ্জ, মুন্সীগঞ্জ, নারায়ণগঞ্জ, গাজীপুর, রাজবাড়ী, মাদারীপুর ও গোপালগঞ্জে বিধিনিষেধ আরোপ করা হয়েছে। লকডাউন চলাকালে জনসাধারণের চলাচলসহ সবকিছু সকাল ৬টা থেকে মধ্যরাত পর্যন্ত বন্ধ থাকবে। এ সময় শুধু আইনশৃঙ্খলা এবং জরুরি পরিষেবা চলাচল করতে পারবে। পরবর্তীতে জারি করা উপসচিব রেজাউল ইসলাম স্বাক্ষরিত প্রজ্ঞাপনে জানানো হয়, ‘এ সময়ে শুধু আইনশৃঙ্খলা এবং জরুরি পরিষেবা যেমন কৃষি উপকরণ, খাদ্যশস্য ও খাদ্যদ্রব্য পরিবহন, ত্রাণ বিতরণ, স্বাস্থ্য সেবা, কভিড-১৯ টিকা প্রদান, বিদ্যুৎ, পানি, গ্যাস/জ্বালানি, ফায়ার সার্ভিস বন্দরসমূহের কার্যক্রম, টেলিফোন ও ইন্টারনেট, গণমাধ্যম, বেসরকারি নিরাপত্তা ব্যবস্থা, ডাক সেবাসহ অন্যান্য জরুরি ও অত্যাবশ্যকীয় পণ্য ও সেবার সঙ্গে সংশ্লিষ্ট অফিসসমূহ তাদের কর্মচারী ও যানবাহন এবং পণ্যবাহী ট্রাক/লরি এ নিষেধাজ্ঞার আওতাবহির্ভূত থাকবে’।

চারপাশের জেলায় বিধিনিষেধ আরোপ করায় কার্যত বিচ্ছিন্ন থাকবে ঢাকা। তবে এসব জেলায় তৈরি পোশাক কারখানা খোলা থাকবে বলে গণমাধ্যমকে জানিয়েছেন বিজিএমইএর পরিচালক মহিউদ্দিন রুবেল। তিনি জানান, আজ ‘কভিড-১৯ এর বিস্তার রোধকল্পে সার্বিক কার্যাবলি/চলাচলে বিধিনিষেধ আরোপ’ প্রসঙ্গে মন্ত্রিপরিষদ বিভাগ একটি নোটিস জারি করেছে। আপনাদের সদয় অবগতির জন্য জানানো যাচ্ছে যে, তৈরি পোশাক খাত এর আওতাবহির্ভূত থাকবে।’