Dr. Neem on Daraz
Dr. Neem Hakim

দুপচাঁচিয়ায় জানালা দিয়ে গৃহবধূকে উত্যক্ত, আটক ১


আগামী নিউজ | উপজেলা প্রতিনিধি, দুপচাঁচিয়া (বগুড়া) প্রকাশিত: জুন ৮, ২০২৩, ০১:৩১ পিএম
দুপচাঁচিয়ায় জানালা দিয়ে গৃহবধূকে উত্যক্ত, আটক ১

বগুড়াঃ দুপচাঁচিয়া উপজেলায় গরমে খোলা রাখা জানালা দিয়ে এক গৃহবধূকে (২১) ডাক দিয়ে যৌন আকর্ষণের মাধ্যমে নিপীড়ন করার অভিযোগে আসাদুল ইসলাম (২৫) নামের এক ব্যক্তিকে আটক করে আদালতের মাধ্যমে কারাগারে পাঠিয়েছে পুলিশ।

আটককৃত আসাদুল ইসলাম দুপচাঁচিয়া উপজেলার ধারশুন গ্রামের এরশাদের ছেলে। সে বর্তমানে একই উপজেলার কইল গ্রামের হাটখোলায় বসবাস করে। 

যৌন নিপীড়িত ওই গৃহবধূ জানায়, মঙ্গলবার (৬ জুন) গভীর রাতে প্রচন্ড গরমের কারণে জানালা খোলা রাখায় নিপীড়ক আসাদুল জানালার কাছে এসে বিভিন্নভাবে যৌন আকর্ষণ করার চেষ্টা করে। পরে গৃহবধূর চিৎকারে ওই নিপীড়ককে আটক করে স্বামীসহ স্থানীয়রা।

এঘটনায় দুপচাঁচিয়ায় থানায় একটি মামলা দায়ের করে দুপচাঁচিয়া উপজেলার কইল চকপাড়া গ্রামের জাহাংগীর আলমের স্ত্রী যৌন নিপীড়িত ওই গৃহবধূ।

মামলার এজাহার সূত্রে জানা গেছে, স্বামীর পরিচিত হওয়ায় গৃহবধূর স্বামী বাড়িতে ২/৩ দিন এসেছিল আসাদুল। আসাদুল গৃহবধূকে দেখে কুদৃষ্টি দেয়। এরপর মোবাইল ফোন নম্বর সংগ্রহ করে কথাবার্তার মাধ্যমে যৌন নিপীড়নমূলক ইঙ্গিত দেয় এবং বিরক্ত করে। স্বামী বাড়িতে না থাকার সুযোগে আসাদুল এসে বিভিন্নভাবে যৌন ইঙ্গিতবাহী আচরণ করত গৃহবধূকে। 

গৃহবধূ স্বামীকে সবকিছু জানালে তার স্বামীর নিষেধ সত্ত্বেও তাকে বিরক্ত করা অব্যাহত রাখে আসাদুল। সাংসারিক প্রয়োজনে বাড়ির বাইরে গেলে গৃহবধূর পিছু নিয়ে নিপীড়ক আসাদুল বিভিন্ন অশালীন আচরণ করত। এরই ধারাহিকতায় ঘটনার সময় গরমে খোলা রাখা জানালায় এসে আসাদুল যৌনাকাঙ্ক্ষার জন্য প্রস্তাব দেয় গৃহবধূকে।

দুপচাঁচিয়া থানার ওসি আবুল কালাম আজাদ বলেন, যৌন নিপীড়ন বন্ধে পুলিশ তৎপর রয়েছে। যৌন নিপীড়নের অভিযোগ পেলে তদন্তসাপেক্ষে দ্রুত ব্যবস্থা নেয়া হবে। 

দেওয়ান পলাশ/বুইউ

আগামী নিউজ এর সংবাদ সবার আগে পেতে Follow Or Like করুন আগামী নিউজ এর ফেইসবুক পেজ এ , আগামী নিউজ এর টুইটার এবং সাবস্ক্রাইব করুন আগামী নিউজ ইউটিউব চ্যানেলে