Agaminews
August

মোংলায় নাবিকের ফাঁস লাগানো লাশ উদ্ধার


আগামী নিউজ | শেখ বাদশা, বাগেরহাট জেলা প্রতিনিধি প্রকাশিত: জুলাই ২২, ২০২১, ১০:২৫ পিএম
মোংলায় নাবিকের ফাঁস লাগানো লাশ উদ্ধার

ফাইল ছবি

বাগেরহাটঃ বাগেরহাট জেলার মোংলা বন্দরের পশুর চ্যানেলে অবস্থানরত লাইটার জাহাজের নাবিক আবুল বাসার (৫৫) এর গলায় ফাঁস লাগানো লাশ উদ্ধার করেছে পুলিশ। 

বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর জাহাজের পন্য রাখার কেবিন থেকে লাশ উদ্ধার করা হয়। জাহাজ নাবিক আবুল বাসার ফরিদপুর গোয়ালমারী এলাকার মৃত মোফাজ্জেল হোসেনের ছেলে। গত ৬ বছর যাবত ঢাকার এক মালিকের লাইটার জাহাজ এমভি ডিটলেন্ডে নাবিক হিসেবে চাকরী করছিলেন।

লাইটার জাহাজের মাষ্টার আনোয়ার হোসেন বলেন, গত দুইদিন পুর্বে ঢাকা থেকে মোংলা বন্দরের পশুর চ্যানেলে ১ নং বয়া এলাকায় নোঙ্গর করে লাইটার জাহাজ এমভি ডিটলেন্ডে। লাইটারটি মোংলা বন্দরের একটি বাণিজ্যিক মাদার ভ্যাসেল থেকে সার বোঝাই করে পুনরায় ঢাকায় ছেড়ে যাওযার কথাছিলো। জাহাজটিতে মাস্টারসহ ১২ জন নাবিক ছিল। বৃহস্পতিবার দুপুরের পর নাবিক আবুল বাসার কাউকে কিছু না বলে লাইটার জাহাজটির মাথায় গিয়ে পন্য বোঝাইয়ের কেবিনে নামে। সেখান থেকে ফিরে না আসায় খোজা-খুজি শুরু করে অন্য নাবিকরা। পরে সন্ধ্যার পর কেবিনের মধ্যে গলায় ফাঁস লাগানো অবস্থায় ঝুলতে দেখে জাহাজে থাকা নাবিকরা।

মোংলা থানার অফিসার ইনচার্জ মোঃ ইকবাল বাহার চৌধুরী জানায়, বৃহস্পতিবার সন্ধ্যার পর খবর পেয়ে পশুর নদীতে গিয়ে লাইটার জাহাজ থেকে গলায় ফাঁস লাগানো নাবিকের লাশ উদ্ধার করা হয়েছে। শুক্রবার সকালে লাশ ময়না তদন্তের জন্য বাগেরহাট সদর হাসপাতালে পাঠানো হবে। তবে কি কারনে তিনি গলায় ফাঁস লাগালো সে ব্যাপারে অনুসন্ধান চলছে।