Agaminews
August

নড়াইলে বাড়ির আঙিনায় মিশ্র ফলবাগান করে লাখপতি কৃষক


আগামী নিউজ | মো.বাবর আলী, নড়াইল জেলা প্রতিনিধি প্রকাশিত: জুলাই ১৭, ২০২১, ০৩:২৮ পিএম
নড়াইলে বাড়ির আঙিনায় মিশ্র ফলবাগান করে লাখপতি কৃষক

ছবিঃ আগামী নিউজ

নড়াইলঃ বাড়ির আঙিনাতে মিশ্র ফলবাগান করে লাখপতি নড়াইলের এক কৃষক। পাশাপাশি গড়ে তুলেছেন নার্সারি ও সবজি ক্ষেত। মিশ্র এই ফলবাগানে রয়েছে হরেক রকম ফলমূল। কোনো প্রকার কীটনাশক ছাড়া জৈব সার ও বালাইনাশক ব্যবহার করে ফলমূল ও শাক-সবজি বাজারজাত করছেন তিনি। খরচ বাদে বছরে আয় করেন লক্ষাধিক টাকা।
 
মিশ্র ফলবাগানে রয়েছে দুর্লভ ট্যাং ফল(প্যাশন ফ্রুট), স্ট্রবেরি, মাল্টা, কমলা লেবু, আনারস, ড্রাগনসহ হরেক রকম ফলমূল
 
থোকায় থোকায় ঝুলছে বিভিন্ন জাতের মাল্টা, কমলা লেবু, আনারস, ড্রাগন, ডালিম, আম, পেয়ারা, আমড়া, কলা, পেঁপেসহ হরেক রকম মৌসুমি ফল। সেই সঙ্গে বিভিন্ন প্রকার শাক-সবজিসহ নার্সারি ক্ষেত। এছাড়া রয়েছে দুর্লভ ট্যাং ও স্ট্রবেরি ফলের চাষাবাদ। বসত বাড়ির আঙিনাসহ পাশের এক একর জমিতে ব্যতিক্রমী এই বাগানটি ২০১০ সালে গড়ে তোলেন নড়াইলের কালিয়া পৌরসভার ৬ নম্বর ওয়ার্ডের গোবিন্দনগর এলাকার বাসিন্দা বাবুল হোসেন। তার এই ব্যতিক্রমী বাগান দেখে অনুপ্রাণিত এলাকাবাসী।
 
প্রথমদিকে নার্সারি আবাদ শুরু করেন বাবুল হোসেন। এরপর মিশ্র ফলবাগান করেন। এখানে প্রায় ১৩০ প্রজাতির ফলজ ও নার্সারির চারা রয়েছে। খরচ বাদে এই বাগান থেকে বছরে আয় করেন লক্ষাধিক টাকা। বাগান পরিচর্যায় তাকে সহযোগিতা করেন স্ত্রী ও দুই সন্তান। সরকারি পৃষ্ঠপোষকতা পেলে নার্সারিসহ মিশ্র ফলবাগানের পরিধি আরো বাড়াবেন বলে জানিয়েছেন তিনি। 
 
বসতবাড়ির আঙিনায় বাবুল হোসেনের এই বাগানটি যেমন ব্যতিক্রম, তেমনি তাকে এনে দিয়েছে আর্থিক স্বচ্ছলতা। তার এই ব্যতিক্রমী বাগান দেখে অন্যরাও অনুপ্রাণিত হচ্ছেন। এমনটিই জানিয়েছেন উপজলো কৃষি কর্মকর্তা সুবীর কুমার বিশ্বাস।