আবারও মেসির জোড়া গোল, আর্জেন্টিনার বড় জয়


আগামী নিউজ | ক্রীড়া ডেস্ক প্রকাশিত: সেপ্টেম্বর ২৮, ২০২২, ১০:১৯ এএম
আবারও মেসির জোড়া গোল, আর্জেন্টিনার বড় জয়

ঢাকাঃ লিওনেল মেসি আর আর্জেন্টিনাকে কে আটকাবে? জ্যামাইকার বিরুদ্ধে ৩-০ জয় পেয়েছে দলটি। তাতে পৌঁছে গেছে অপরাজিত থাকার বিশ্ব রেকর্ডের আরও কাছে। ফ্লুতে আক্রান্ত হওয়ায় একাদশে ছিলেন না মেসি। জায়গা পেলেন বেঞ্চে। তার পরিবর্তে শুরুর একাদশে সুযোগ পাওয়া হুলিয়ান আলভারেজের গোলে এগিয়ে যায় আলবিসেলেস্তেরা।

রেকর্ড সাতবারের ব্যালন ডি’অর জয়ী মহাতারকা মাঠে নামের বিরতির পর, তখন ম্যাচের বাকি আর ৩৬ মিনিট। শেষ দিকে পায়ের জাদুতে নিজের সামর্থ্য দেখালেন ৩৫ বছর বয়সী এই ফরোয়ার্ড। তাতে জ্যামাইকাকে উড়িয়ে দিল আর্জেন্টিনা।

বুধবার (২৮ সেপ্টেম্বর) যুক্তরাষ্ট্রের নিউজার্সির রেড বুল অ্যারেনায় আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে এ জয় পায় আলবিসেলেস্তেরা।

কাতার বিশ্বকাপের আগে সবশেষ আন্তর্জাতিক প্রীতি ম্যাচে মেসির পাশাপাশি রড্রিগো ডি পলকেও দলে রাখেননি কোচ লিওনেল স্কালোনি। জায়গা পাননি পাপু গোমেজও। আগের ম্যাচে না থাকা আনহেল ডি মারিয়া, ক্রিশ্চিয়ান রোমেরো, এমিলিয়ানো মার্টিনেজ একাদশে ফেরেন।

প্রথমার্ধের নিষ্প্রভ আধিপত্য দেখায় আর্জেন্টিনা। ১৩ মিনিটে প্রতিপক্ষের বিপৎসীমায় ঢুকে পড়েন লাওতারো মার্টিনেজ। ইন্টার মিলানের এই স্ট্রাইকার কাট-ব্যাক করেন ম্যানচেস্টার সিটি স্ট্রাইকার অরক্ষিত আরভারেজকে। ডি-বক্সের ভেতর থেকে তার সহজ গোলে এগিয়ে যায় দল। জাতীয় দলে এটি তার দ্বিতীয় গোল। পাঁচ মিনিটের মাথায় আলভারেজ বল বাড়িয়ে দেন জিওভানি লো চেলসোকে। তবে সে যাত্রায় আর গোল পায়নি আর্জেন্টিনা।

শুরুর দিকে এগিয়ে যাওয়া আর্জেন্টিনা ব্যবধান আর বাড়াতে পারছিল না। রক্ষণ দারুণভাবে সামলে সমতায় ফেরার আশায় ছিল জ্যামাইকা।

দ্বিতীয়ার্ধে দ্বিতীয় গোলের জন্য অপেক্ষা করতে হয়েছে ৮৬ মিনিট পর্যন্ত। তিনি বলটা বাড়িয়ে দিয়েছিলেন লো চেলসোকে। তাকে ট্যাকল করে বলটা কেড়ে নিতে চেয়েছিল জ্যামাইকার রক্ষক। তবে ব্যর্থ হয়ে বলটা যায় মেসির পায়ে। তিনি জটলা ভেদ করে নেন শট, আর তা গিয়ে জড়ায় জালে।

এর দুই মিনিট পর একই জায়গায় ফ্রি কিক পায় আর্জেন্টিনা। গতানুগতিক ফ্রি কিকটা নেন মেসি। এবারও বল জালে জড়াতে ভুল করেনি। প্রায় এক বছর পর ফ্রি কিক থেকে গোলের দেখা পান মেসি। এদিকে স্কোর ততক্ষণে ৩-০। এই জয়ে টানা ৩৫ ম্যাচে অপরাজিত থাকার রেকর্ড গড়ল দুবারের বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন আর্জেন্টিনা।

ম্যাচের ৬৭ শতাংশ সময় বল ছিল আর্জেন্টিনার নিয়ন্ত্রণে। গোলমুখে তাদের নেওয়া ১৭টি শটের আটটি ছিল লক্ষ্যে। বিপরীতে, জ্যামাইকা গোলমুখে দুটি শট নিয়ে একটিও লক্ষ্যে রাখতে পারেনি।

হন্ডুরাসের বিপক্ষে জেতা ম্যাচের একাদশে আটটি পরিবর্তন আনেন স্কালোনি। তবে তার দলের খেলায় তারতম্য ঘটেনি তেমন। আর দলের সেরা গোলরক্ষক এমিলিয়ানো মার্তিনেজকে গোলপোস্টের নিচে প্রায় অলস সময় কাটাতে হয়।

গত শনিবার মায়ামির হার্ড রক স্টেডিয়ামে হন্ডুরাসকে একই ব্যবধানে হারিয়েছিল লিওনেল স্কালোনির শিষ্যরা। সেদিনও দলের দুর্দান্ত জয়ে সামনে থেকে নেতৃত্ব দিয়েছিলেন পিএসজি ফুটবলার মেসি। তার পা থেকে ওই প্রীতি ম্যাচেও এসেছিল জোড়া গোল। এ নিয়ে যুক্তরাষ্ট্রের মাটিতে তার ক্যারিয়ারে এসেছে ১৬ গোল।

টানা সবচেয়ে বেশি ম্যাচে অপরাজিত থাকার ক্ষেত্রে আর্জেন্টিনার সামনে ছিল শুধু ব্রাজিল, স্পেন ও ইতালি। টানা ৩৫ ম্যাচে অপরাজিত থাকার রেকর্ড ছিল ব্রাজিল ও স্পেনের। আজ জ্যামাইকাকে হারিয়ে দুটি দলকে ছুঁয়ে ফেলল আর্জেন্টিনা।

এমবুইউ