Dr. Neem on Daraz
Dr. Neem Hakim

বড় হারে বিশ্বকাপ শুরু বাংলাদেশের


আগামী নিউজ | ক্রীড়া ডেস্ক প্রকাশিত: জানুয়ারি ১৭, ২০২২, ০৯:০৮ এএম
বড় হারে বিশ্বকাপ শুরু বাংলাদেশের

ঢাকাঃ ব্যাট করতে নেমে যে হতচ্ছিরি অবস্থা দেখিয়েছিল অনূর্ধ্ব-১৯ দলের ব্যাটাররা, তাতে জয়ের আশা তখনই শেষ হয়ে যায়। যদিও শেষ মুহূর্তে ১১ নাম্বার ব্যাটার রিপণ মন্ডল দৃঢ়তা দেখিয়ে স্কোরকে ৯৭ রানে নিয়ে যায়। ৯৮ রানের লক্ষ্যে খেলতে নেমে কোনোই বেগ পেতে হয়নি ইংল্যান্ড অনূ্র্ধ্ব-১৯ দলকে।

৩ উইকেট হারিয়ে মাত্র ২৫.১ ওভারেই জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যায় ইংল্যান্ড যুব ক্রিকেটাররা। ফলে ৭ উইকেটের বড় ব্যবধানে পরাজয় দিয়ে যুব বিশ্বকাপে নিজেদের অভিযাত্রা শুরু করলো বর্তমান বিশ্ব চ্যাম্পিয়ন বাংলাদেশ।

সেন্ট কিটসের ওয়ার্নার পার্কে টস জিতে আগে ব্যাটিংয়ের সিদ্ধান্ত নিয়েছিল বাংলাদেশ দল। কিন্তু ব্যাটারদের ব্যর্থতায় ডিফেন্ডিং চ্যাম্পিয়নদের স্কোরবোর্ড সমৃদ্ধ হয়নি। টপ অর্ডার-মিডল অর্ডারের ব্যাটিং ব্যর্থতার পর শেষ ব্যাটার হিসেবে ব্যাটিংয়ে নেমে রিপন মণ্ডল দলের স্কোরকে তিন অঙ্কের কাছাকাছি নিয়ে যেতে পেরেছেন। নয়তো ৫১ রানেই অলআউট হয়ে যেতে পারতো লাল-সবুজ জার্সিধারীরা! শেষ পর্যন্ত দশম উইকেটে রিপন মণ্ডল ও নাঈমুর রহমানের ৪৬ রানের জুটিতে বাংলাদেশ ৩৫.২ ওভারে সবকটি উইকেট হারিয়ে ৯৭ রান করতে পেরেছে।

মূলত ইংলিশ পেসার জোশুয়া বয়ডেনের ইনসুইং আর আউটসুইংয়ে এলোমেলো হয়ে পড়ে বাংলাদেশের ব্যাটিং লাইনআপ। ৮ রানে ৪ উইকেট হারানো দলকে বিপর্যয় থেকে উদ্ধার করতে পারেনি মিডল অর্ডার।  দলের হয়ে চার ব্যাটার তিন অঙ্কের ঘরে পৌঁছাতে পেরেছেন। আইচ মোল্লা (১৩),  মেহরাব হাসান (১৪),  টেল অ্যান্ডার রিপন মণ্ডলের (৩৩), নাঈমুর রহমান (১১) ব্যাটেই বাংলাদেশের স্কোর ৯৭ রানে পৌঁছাতে পেরেছে। বাকি ব্যাটারদের কেউই দুই অঙ্কের ঘরে পৌঁছাতে পারেননি।

ইংলিশ বোলাদের মধ্যে সবচেয়ে সফর বোলার জোশুয়া বয়ডেন। ৯ ওভারে ১৬ রান খরচ করে এই পেসার নিয়েছেন  চারটি উইকেট। এছাড়া থমাস অ্যাসপিনওয়াল নিয়েছেন দুটি উইকেট।

৯৮ রানের সহজ লক্ষ্যে খেলতে নেমে শুরু থেকেই ধীরস্থির ভাবে খেলতে থাকেন ইংলিশ ব্যাটাররা। বাংলাদেশের বোলাররা ১৫ ওভারে ২ উইকেট তুলে নিয়ে ভালোই চেপে ধরেছিল ইংলিশ ব্যাটারদের। শেষ পর্যন্ত অবশ্য সেই চাপ অব্যহত রাখতে পারেননি। ২৫.১ ওভারে ৩ উইকেট হারিয়ে জয়ের লক্ষ্যে পৌঁছে যায় ইংল্যান্ড। ইংলিশ ওপেনার জ্যাকব বেটেলের ব্যাট থেকে আসে সর্বোচ্চ ৪৪ রানের ইনিংস। এছাড়া জেমস রয় খেলেন অপরাজিত ২৬ রানের ইনিংস।

দুই পেসার আশিকুজ্জামান ও রিপন মণ্ডল চেপে ধরেছিলেন ইংলিশদের। কিন্তু সফর দুই পেসারকে ঠিকমতো ব্যবহার করেননি অধিনায়ক রাকিবুল!  আশিক ৪ ওভারে ৪ রান খরচ করে উইকেট শূন্য ছিলেন। অন্যদিকে রিপন ২৩ রান খরচ করে নিয়েছেন একটি উইকেট। রাকিবুল ৪ ওভারে ১৩ রান খরচায় নেন একটি উইকেট।

এর আগে ওয়েস্ট ইন্ডিজের সেন্ট কিটস অ্যান্ড নেভিসের ওয়ার্নার পার্কে টস জিতে ব্যাট করতে নেমে ৩৫.২ ওভারে ৯৭ রানে অলআউট হয়ে যায় বাংলাদেশ। ৫১ রানে ৯ উইকেট পড়ার পর নাইমুর রহমানকে নিয়ে ৪৬ রানের জুটি গড়েন ১১তম ব্যাটার রিপণ মন্ডল। রিপণ অপরাজিত থেকে যান ৪১ বলে ৩৩ রান করে।

আগামীনিউজ/বুরহান