Dr. Neem on Daraz
Dr. Neem Hakim

প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের দ্বিতীয় ধাপের ২৯ জেলায় পরীক্ষা আজ


আগামী নিউজ | আগামী নিউজ প্রতিবেদক প্রকাশিত: মে ২০, ২০২২, ০৯:৩৭ এএম
প্রাথমিক শিক্ষক নিয়োগের দ্বিতীয় ধাপের ২৯ জেলায় পরীক্ষা আজ

ঢাকাঃ সরকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৪৫ হাজার সহকারী শিক্ষক নিয়োগে দ্বিতীয় ধাপের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে আজ শুক্রবার (২০ মে)। এদিন আবেদনকারীরা নিজ নিজ জেলায় বেলা ১১টা থেকে দুপুর ১২টা পর্যন্ত এক ঘণ্টার এ পরীক্ষায় অংশ নেবেন। এ ধাপে পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ৪ লাখ ৬৬ হাজার ১০০ জন।

দ্বিতীয় ধাপে আজ দেশের ২৯ জেলায় প্রাথমিকে সহকারী শিক্ষক নিয়োগের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে। এরমধ্যে সাতটি জেলার সবকটি উপজেলায় এবং ২২টি জেলার কিছু কিছু উপজেলার প্রার্থীরা এ পরীক্ষায় অংশ নেবেন। তবে বন্যার মতো প্রাকৃতিক দুর্যোগের কারণে পিছিয়েছে সিলেট জেলার পরীক্ষা। এ জেলার দ্বিতীয় ধাপের পরীক্ষা হবে ৩ জুন।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদফতর সূত্র জানায়, সারাদেশের সরাকারি প্রাথমিক বিদ্যালয়ে ৪৫ হাজার শিক্ষক নিয়োগের সিদ্ধান্ত নিয়েছে সরকার। এর জন্য তিন ধাপে আয়োজন করা হয়েছে লিখিত পরীক্ষা। ইতোমধ্যেই প্রথম ধাপের লিখিত পরীক্ষার ফল প্রকাশ করা হয়েছে। দ্বিতীয় ধাপে আজ শুক্রবার ৩০ জেলায় পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হওয়ার কথা থাকলেও আকষ্মিক বন্যার কারণে সিলেট জেলার পরীক্ষা স্থগিত করা হয়েছে। এই জেলার পরীক্ষাটি আগামী ৩ জুন অনুষ্ঠিত হবে। সিলেট জেলায় পরীক্ষার্থীর সংখ্যা ১৮ হাজার ৬২৫ জন।

দ্বিতীয় ধাপের যেসব জেলার সব উপজেলায় পরীক্ষা হবে, সেগুলো হলো রাজশাহী, খুলনা, ফরিদপুর, চাঁদপুর, ব্রাহ্মণবাড়িয়া, রংপুর ও বরিশাল।

যেসব জেলার কিছু উপজেলায় পরীক্ষা হবে, সেগুলো হলো নওগাঁ (সদর, নিয়ামতপুর, পত্নীতলা, রানীনগর, পোরশা, সাপাহার), নাটোর (বাগাতিপাড়া, বড়াইগ্রাম, গুরুদাসপুর, লালপুর), সিরাজগঞ্জ (রায়গঞ্জ, শাহজাদপুর, সদর, তাড়াশ), কুষ্টিয়া (খোকসা, সদর, মিরপুর), ঝিনাইদহ (হরিণাকুণ্ডু, সদর, কালীগঞ্জ), যশোর (অভয়নগর, চৌগাছা, সদর, বাঘেরপাড়া), সাতক্ষীরা (সদর, দেবহাটা, কলারোয়া, কালীগঞ্জ), বাগেরহাট (মোল্লারহাট, মোংলা, মোড়লগঞ্জ, কচুয়া, শরণখোলা), জামালপুর (সদর, মাদারগঞ্জ, মেলান্দহ), ময়মনসিংহ (মুক্তাগাছা, সদর, নান্দাইল, ফুলপুর, তারাকান্দা, ত্রিশাল), নেত্রকোনা (খালিয়াজুরি, মদন, মোহনগঞ্জ, সদর, পূর্বধলা), কিশোরগঞ্জ (সদর, কুলিয়াচর, মিঠামইন, নিকলী, পাকুন্দিয়া, তাড়াইল), টাঙ্গাইল (কালিহাতী, মধুপুর, মির্জাপুর, নাগরপুর, সফিপুর, বাসাইল), রাজবাড়ি (কালুখালী, গোয়ালন্দ, পাংশা), কুমিল্লা (দেবিদ্বার, হোমনা, লাকসাম, লালমাই, সদর দক্ষিণ, মনোহরগঞ্জ, মুরাদনগর, নাগলকোট, তিতাস), নোয়াখালী (বেগমগঞ্জ, চাটখিল, কোম্পানিগঞ্জ, হাতিয়া), পিরোজপুর (নাজিরপুর, নেছারাবাদ, সদর), পটুয়াখালী (কলাপাড়া, মির্জাগঞ্জ, সদর, রাঙ্গাবালি, দুমকি), সুনামগঞ্জ (দোয়ারাবাজার, জগন্নাথপুর, জামালগঞ্জ, শাল্লা, সদর, তাহিরপুর), হবিগঞ্জ (সদর, লাখাই, মাধবপুর, নবীগঞ্জ, শায়েস্তাগঞ্জ), কুড়িগ্রাম (ফুলবাড়ী, রাজারহাট, রাজীবপুর, রৌমারী, উলিপুর) ও গাইবান্ধা (সাদুল্যাপুর, ফুলছড়ি, সাঘাটা, সুন্দরগঞ্জ)।

প্রাথমিক শিক্ষা অধিদপ্তর জানিয়েছে, পরীক্ষা কেন্দ্রে কোনো বই, উত্তরপত্র, নোট বা অন্য কোনো কাগজপত্র, ক্যালকুলেটর, মোবাইল, ভ্যানিটি ব্যাগ, পার্স, হাতঘড়ি বা ঘড়িজাতীয় বস্তু, ইলেকট্রনিক হাতঘড়ি বা যেকোনো ধরনের ইলেকট্রনিক ডিভাইস, কমিউনিকেটিভ ডিভাইস বা এ জাতীয় বস্তু সঙ্গে নিয়ে প্রবেশ করা সম্পূর্ণ নিষিদ্ধ।

যদি কোনো পরীক্ষার্থী উল্লিখিত দ্রব্যাদি সঙ্গে নিয়ে পরীক্ষা কেন্দ্রে প্রবেশ করে তবে তাকে তাৎক্ষণিক বহিষ্কারসহ সংশ্লিষ্টের বিরুদ্ধে আইনানুগ ব্যবস্থা নেওয়া হবে। ৪৫ হাজার পদের জন্য আবেদন করেছেন ১৩ লাখ ৯ হাজার ৪৬১ জন।

প্রসঙ্গত, ৪৫ হাজার সহকারী শিক্ষক নিয়োগের প্রথম ধাপের ২২ জেলার লিখিত পরীক্ষার ফল গত ১২ মে প্রকাশিত হয়। এতে উত্তীর্ণ হয়েছেন ৪০ হাজার ৮৬২ জন। উত্তীর্ণ এই প্রার্থীদের এবার মৌখিক পরীক্ষা নেওয়া হবে। তবে এখনো মৌখিক পরীক্ষার স্থান, তারিখ ও সময় নির্ধারণ করা হয়নি। আর তৃতীয় ধাপের লিখিত পরীক্ষা অনুষ্ঠিত হবে আগামী ৩ জুন।

এই তিন ধাপে পরীক্ষা নেয়া শেষে উত্তীর্ণ পরীক্ষার্থীদের আগামী জুলাইয়ের মধ্যে নিয়োগ দেওয়া হবে বলে জানিয়েছে প্রাথমিক ও গণশিক্ষা মন্ত্রণালয়। প্রাথমিকের ইতিহাসে এটিই এখন পর্যন্ত সবচেয়ে বড় নিয়োগ বিজ্ঞপ্তি। ২০২০ সালের ২৫ অক্টোবর অনলাইনে আবেদন শুরু হয়। আবেদন করেছেন ১৩ লাখ ৯ হাজার ৪৬১ প্রার্থী। সে হিসাবে ১টি পদের বিপরীতে প্রতিযোগিতা করবেন ২৯ প্রার্থী।

এমবুইউ